mous">
বুধবার, ২৭ অক্টোবর ২০২১, ০২:২৮ পূর্বাহ্ন

গজারিয়ায় চাঞ্চল্যকর মীম হত্যা মামলার প্রধান আসামী সংগ্রামসহ ২ জন গ্রেফতার

তুষার আহাম্মেদ-  গজারিয়া উপজেলার হোসেন্দী ইউনিয়নের ইসমানিরচরে চাঞ্চল্যকর  হাতুড়ী পেটায় নিহত সাজিদুল ইসলাম মীম(২২) হত্যা মামলার প্রধান আসামী সংগ্রামসহ সঙ্গীয় অপর আসামী নিঝুম গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়েছে গজারিয়া থানা পুলিশ।
তথ্যসূত্রে জানা যায়,চাঞ্চল্যকর মীম হত্যা মামলার পর থেকেই এজাহারনামীয় সকল আসামীরা দেশের বিভিন্ন এলাকায় আত্নগোপন করে।পুলিশ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারে যে, অত্র মামলার এজাহারনামীয় মূল আসামী (১).মোঃসংগ্রাম মোল্লা (২৪)পিতা-মৃত আঃবাছেদ মোল্লা (২).মোঃনিঝুম (২২)পিতা-মৃত মহসিন রাজশাহী এলাকায় অবস্থান করছে।পরবর্তীতে গজারিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ রইছ উদ্দীন এর নেতৃত্বে সঙ্গীয় পুলিশ পরিদর্শক মোঃমোজাম্মেল হোসেন এবং অন্যান্য ফোর্সসহ রাজশাহীর বোয়ালিয়া থানা এলাকায় অভিযান চালিয়ে অদ্য বুধবার রাত ০৪ঘটিকায় আসামীদেরকে গ্রেফতার করা হয়।
উল্লেখ্য গত ১৫ সেপ্টেম্বর দুপুর আনুমানিক ০১ঘটিকার সময় উপজেলার ইসমানিরচর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় সংলগ্ন এয়্যাডভান্স প্রি-ক্যাডেট স্কুল এর মাঠে ডেকে নিয়ে গোয়ালগাঁও গ্রামের আঃসাত্তার এর ছেলে সাজিদুল ইসলাম মীম(২২)কে গ্রেফতারকৃত আসামীদ্বয় অন্যান্য পলাতক আসামী সহ হাতুড়ী  দ্বারা নৃশংসভাবে পিটাইয়া মাথাসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে জখম করে,পরবর্তীতে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় গত ২৩ই সেপ্টেম্বর তিনি মৃত্যুবরণ করেন।
ঘটনার পরপরই ভিকটিমের পিতা আঃছাত্তার ঘটনার সাথে জড়িত আসামীদের বিরুদ্ধে এজাহার দায়ের করিলে গজারিয়া থানার মামলা নং১৫,তারিখ-১৭/০৯/২০২১ইং ধারা-১৪৩/৩৪১/ ৩২৩/৩২৫/৩০৭/৩৭৯/৫০৬দঃবিঃ৩০২ রুজু করা হয়।
এ বিষয়ে গজারিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃরইছ উদ্দীন বলেন,গ্রেফতারকৃত আসামীদ্বয় জিজ্ঞাসাবাদে উভয়ে উক্ত ঘটনার সাথে জড়িত ছিল মর্মে স্বীকারোক্তি প্রদান করেছে।ইতিমধ্যে এই মামলায় রাজিব নামে একজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।আসামী সংগ্রামের বিরুদ্ধে ০৫টি মামলা আদালতে বিচারাধীন ও আসামী নিঝুমের বিরুদ্ধে একাধিক মামলা রয়েছে বলে জানান গজারিয়া থানা পুলিশ।



ফেজবুক পেইজে লাইক দিন